মাদ্রাসায় সাড়ে তিন হাজারের বেশি শিক্ষক শূন্যপদ, নিয়োগ নিয়ে ফের মামলা

মাদ্রাসায় সাড়ে তিন হাজারের বেশি শিক্ষক শূন্যপদ, নিয়োগ নিয়ে ফের মামলা


News Desk : গত ৬ জানুয়ারী পশ্চিমবঙ্গ মাদ্রাসা সার্ভিস কমিশনের মাধ্যমে শিক্ষক [ WB Madrasah Teacher Recruitment ] নিয়োগের মান্যতা দেয় সুপ্রিম কোর্ট। কিন্তু এই রায়ে অসন্তোষ প্রকাশ করে, ডিভিশন বেঞ্চের নির্দেশকে পুর্নবিবেচনা করার জন্যে সুপ্রিম কোর্টে মামলা দায়ের করল কন্টাই রহমানিয়া মাদ্রাসা কতৃপক্ষ। আজ সোমবার, আদালতে সেই মামলার রায় হবে বলে জানা গিয়েছে।

West Bengal Madrasah Teacher Recruitment 2020


West Bengal Madrasah Teacher Recruitment 2020


অ্যাকাডেমিক অফ ফাইন আর্টস বেঙ্গল মাদ্রাসা এডুকেশন ফোরামের উদ্যোগে এক আলোচনা সভায়, মাদ্রাসার শিক্ষক ও বিশিষ্ট রা বলেন, এই মুহুর্তে রাজ্যে ৬১৪ টি মাদ্রাসা আছে। এবং এর মধ্যে ৩০ থেকে ৪০ টি মাদ্রাসা কতৃপক্ষ চাইছে, পরিচালন সমিতির মাধ্যমে শিক্ষক নিয়োগ হোক। এর ফলে দেখা যাচ্ছে মেধাবী ও যোগ্যতা সম্পর্ন্ন ছেলে - মেয়েরা মাদ্রাসা শিক্ষক নিয়োগে জায়গা পাচ্ছে না। ফলে মাদ্রাসার শিক্ষা ব্যবস্থার অবনতি ঘটছে দিনের পর দিন। তার তারা মনে করছেন, সুপ্রিম কোর্টের কথা মত, দ্রুত শিক্ষক নিয়োগ শুরু করুক কমিশন।

আরও পড়ুন : এক বছরের ডিপ্লোমা কোর্স করে ভারতীয় রেল, পুরনিগম, স্বাস্থ্য দপ্তরে চাকরীর সুযোগ

প্রসঙ্গত, ২০১৩ সাল থেকে পশ্চিমবঙ্গ মাদ্রাসা বোর্ডে শিক্ষক নিয়োগ বন্ধ আছে। ফলে অনেক শূন্যপদ ও তৈরী হয়েছে। মাদ্রাসা সূত্রের খবর, এখনও সাড়ে তিন হাজার সহকারি শিক্ষক পদ খালি আছে এবং ১৫০ টি স্কুলে প্রধান শিক্ষক নেই।  তাই মাদ্রাসা বোর্ডের সভাপতি সহ, বিশিষ্ট রা চাইছেন, কমিশন দ্রুত নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করুন সুপ্রিম কোর্টের রায় অনুযায়ী এবং সেই সাথে মাদ্রাসা গুলি সংখ্যালঘু প্রতিষ্টানের পাশাপাশি যোগ্য প্রার্থীদের স্বচ্ছ ভাবে নিয়োগের জন্য রাজ্য সরকারের দৃষ্টি আকর্ষন করেছেন।
বি:দ্র : নীচের হোয়াটসঅ্যাপে ক্লিক করে  বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন। 

Comments